জাতীয়

কুমির

রাজধানীর তুরাগ থানা এলাকা থেকে পাচারকালে ৬৩৯টি বিরল প্রজাতির কচ্ছপ ও একটি কুমির উদ্ধার করেছে পুলিশ। এসময় আজিজুল ইসলাম (২১) নাম এক পাচারকারীকে আটক করা হয়েছে। তার বাবার মৃত ইউনুস আলী সর্দার। সে যশোর জেলার শার্শা উপজেলার সামটা গ্রামের বাসিন্দা বলে জানান, উত্তরা পশ্চিম থানার ওসি অপারেশন শাহ আলম।

তিনি আরো জানান, বুধবার বিকালে গোপন সূত্রে খবর পেয়ে উত্তরা ১০ নম্বর সেক্টরের ১৩নং রোডের ৫২ বাড়ি থেকে আজিজুল ইসলামকে আটক করা হয়। পরে তার দেয়া সীকারোক্তির ভিত্তিতে তুরাগের রানাভোলা বটতলা এলাকায় অভিযান চালিয়ে মহসিনের নির্মাণাধীন বাড়ির সপ্তম তলা থেকে বিরল প্রজাতির ৬৩৯টি কচ্ছপ ও একটি কুমির উদ্ধার করা হয়।

আজিজুল আরো জানায়, কচ্ছপগুলো ভারতে পাচারের উদ্দেশে তুরাগে এনে রাখা হয়েছে। এব্যাপারে উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ বাদী হয়ে একটি সাধারণ ডায়েরি করেছে।  

উত্তরা পশ্চিম থানা ওসি অপারেশন শাহ আলম জানান, ইন্টাপোলের মাধ্যমে সংবাদ পাওয়া পর উত্তরা থেকে আজিজকে আটক করা হয়। কচ্ছপ ও কুমির উদ্ধারের ঘটনায় তুরাগ থানায় মামলা দায়ের প্রস্তুতি চলছে।  

বিস্তারিত

আন্তর্জাতিক

shuchi

মিয়ানমারে কোন জাতিগত সংখ্যালঘু নিধনের ঘটনা ঘটেনি। তবে যে সব শরনার্থী বাংলাদেশসহ অন্যান্য দেশে গিয়েছে তাদের ফিরিয়ে নিতে প্রস্তুত মিয়ানমার, শেষ পর্যন্ত বিশ্বজাতির উদ্দেশ্যে এমনটাই বললেন মিয়ানমারের নেত্রী অং সান সু চি। তিনি বলেন, রাখাইন রাজ্য ছেড়ে রোহিঙ্গারা কেন বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে তাও খুঁজে বের করা হবে। সু চি বলেন, আমরা শান্তি চাই, ঐক্য চাই-কোন যুদ্ধ চাই না। সু চি আরো বলেন, আমরা শান্তির প্রতি প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। আমরা সব মানুষের দুর্ভোগ গভীরভাবে অনুভব করি। রাখাইনে শান্তি, স্থিতিশীলতা পুনরুদ্ধারে কাজ করছি। রাখাইনে বাস্তুচ্যুতদের সহায়তা দেওয়া হচ্ছে। 
 
পরিস্থিতি দেখার জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে রাখাইন পরিদর্শনে যাওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি। এ ব্যাপারে সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন তিনি। জাতির উদ্দেশ্যে দেয়া এক ভাষণে মঙ্গলবার সকালে মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সু চি এসব কথা বলেন।

উল্লেখ্য, জাতিসংঘের হিসেবে বাংলাদেশে রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের সংখ্যা চার লাখ ছাড়িয়ে গেছে। এখন পর্যন্ত চার লাখ ৯ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে ঢুকেছে। প্রতিদিন গড়ে ১৮ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আসছে।

 সেনা অভিযান বন্ধে মিয়ানমারের প্রতি দ্বিতীয় দফায় গত ১৬ সেপ্টেম্বর আহবান জানায় জাতিসংঘ। সেনা অভিযান বন্ধে দেশটির ডি ফ্যাক্টো নেত্রী অং সান সু চির হাতে শেষ সুযোগ রয়েছে বলেও উল্লেখ করেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস। মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে ব্যাপক হত্যাযজ্ঞ চালিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনী। অমানবিক নির্যাতন চালাচ্ছে, নারীদের ধর্ষণ করছে, শিশু, বৃদ্ধ, যুবকদের এলোপাতাড়ি গুলি করে হত্যার ঘটনা সেখানে ঘটেছে। এর ফলে প্রায় চার লাখ রোহিঙ্গা মুসলিম ওই নিজেদের বাড়ি-ঘর ছেড়ে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। 
 
সু চি মঙ্গলবার তার বক্তব্যে বললেন, জাতিগত সংখ্যালঘু নিধনের মতো ঘটনা মিয়ানমারে ঘটেইনি। তবে যারা দেশ ছেড়েছেন তাদের ফিরিয়ে নিতে দেশটি প্রস্তুত বলে ঘোষণা দিলেন এই নেত্রী। যদিও মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সাম্প্রতিক রোহিঙ্গা নির্যাতনের ঘটনা নিয়ে ইতোমধ্যে জাতিসংঘ, কমনওয়েলথ, হিউম্যান রাইটস ওয়াচের মতো মানবাধিকার সংগঠগুলো তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে।

বিস্তারিত

উত্তরার খবর

কুমির

রাজধানীর তুরাগ থানা এলাকা থেকে পাচারকালে ৬৩৯টি বিরল প্রজাতির কচ্ছপ ও একটি কুমির উদ্ধার করেছে পুলিশ। এসময় আজিজুল ইসলাম (২১) নাম এক পাচারকারীকে আটক করা হয়েছে। তার বাবার মৃত ইউনুস আলী সর্দার। সে যশোর জেলার শার্শা উপজেলার সামটা গ্রামের বাসিন্দা বলে জানান, উত্তরা পশ্চিম থানার ওসি অপারেশন শাহ আলম।

তিনি আরো জানান, বুধবার বিকালে গোপন সূত্রে খবর পেয়ে উত্তরা ১০ নম্বর সেক্টরের ১৩নং রোডের ৫২ বাড়ি থেকে আজিজুল ইসলামকে আটক করা হয়। পরে তার দেয়া সীকারোক্তির ভিত্তিতে তুরাগের রানাভোলা বটতলা এলাকায় অভিযান চালিয়ে মহসিনের নির্মাণাধীন বাড়ির সপ্তম তলা থেকে বিরল প্রজাতির ৬৩৯টি কচ্ছপ ও একটি কুমির উদ্ধার করা হয়।

আজিজুল আরো জানায়, কচ্ছপগুলো ভারতে পাচারের উদ্দেশে তুরাগে এনে রাখা হয়েছে। এব্যাপারে উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ বাদী হয়ে একটি সাধারণ ডায়েরি করেছে।  

উত্তরা পশ্চিম থানা ওসি অপারেশন শাহ আলম জানান, ইন্টাপোলের মাধ্যমে সংবাদ পাওয়া পর উত্তরা থেকে আজিজকে আটক করা হয়। কচ্ছপ ও কুমির উদ্ধারের ঘটনায় তুরাগ থানায় মামলা দায়ের প্রস্তুতি চলছে।  

বিস্তারিত

বিনোদন

Kolpona

অসুস্থ অবস্থায় দিনযাপন করছেন ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় ও পরিচিত মুখ খালেদা আক্তার কল্পনা। অভিনেত্রীর ডান চোখে গ্লুকোমা, রেটিনায় রক্তপাত ও কর্নিয়ার আলসার থেকে ইনফেকশন হয়ে মারাত্মক আকার ধারণ করেছে। এখন শুধু বাম চোখ ভরসা।

জানা গেছে, ঢাকায় চিকিৎসা নিয়েছিলেন কিন্তু দেশের চিকিৎসকদের পরামর্শে উন্নত চিকিৎসার জন্য চেন্নাই থেকে ছানি অপারেশন করান তিনবার। এরপর কলকাতার শঙ্কর নেত্রালয়ে প্রতি চার মাস পর চিকিৎসা করালেও ডায়াবেটিস থাকায় এই চিকিৎসা দীর্ঘস্থায়ী ও ব্যয়বহুল হয়ে পড়েছে। যা তিনি বহন করতে পারছেন না।

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী খালেদা আক্তার কল্পনা পাঁচ শতাধিক চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। অসংখ্য টেলিভিশন নাটকেও অভিনয় করেছেন। জীবনের শেষপ্রান্তে এসে অর্থকষ্টে ভালো চিকিৎসা করাতে পারছেন না।

খালেদা আক্তার কল্পনা বলেন, সামনে ২৩ অক্টোবর চিকিৎসা নিতে কলকাতা যাবো। কিন্তু আসা যাওয়া চিকিৎসা ব্যয়বহুল হওয়ায় আমার পক্ষে বহন করা কঠিম্ন হয়ে পড়ছে।

কেননা সংসারের পুরো ভার আমার ওপর। ছোট ভাইকে সন্ত্রাসীরা গুলি করায় তার হাত কেটে ফেলতে হয়েছে, আরেক ভাই কিডনির সমস্যা মারা গেছে। ওদের চিকিৎসার সব খরচ আমি চালিয়েছি। এখন আর এই ভার টানতে পারছি না। তাছাড়া আমার মাও অসুস্থ। ওনার জন্য অনেক টাকা ব্যয় হচ্ছে। একজন লোক রাখা হয়েছে তাকে দেখভালের জন্য।

এই গুণী অভিনেত্রী বলেন, আমার হাতে কাজ থাকলে হয়তো এসব সমস্যা হতো না। অসুস্থতার জন্য কোনো কাজই করতে পারি না। আমার আর্থিক অবস্থা এতো খারাপ ছিল না। আমি একটা চলচ্চিত্রও প্রযোজনা করেছিলাম। কিন্তু লগ্নিকৃত অর্থ ফেরত পাইনি। আর্থিক ক্ষতি হলেও সব সামলে নিয়েছিলাম। কিন্তু ক্রমাগত পুরো সংসারের চিকিৎসা চালাতে গিয়ে জমাকৃত অর্থও শেষের পথে। এখন জানি না সামনে কী হবে।

বিস্তারিত

খেলাধুলা

Olimpic

অষ্টাদশ শতাব্দীতে বাস্তিল দুর্গের পতন হোক কিংবা হালফিলের সন্ত্রাসবাদী হামলা, বরাবরই খবরের শিরোনামে সিটি অব লাইটস নামে পরিচিত ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস। আর এবার ১৯০০ এবং ১৯২৪ সালের পর ফের একবার অলিম্পিকের আসর বসতে চলেছে বিখ্যাত আইফেল টাওয়ারের শহরে।  

২০২৪ সালে অলিম্পিক প্রতিযোগিতা আয়োজনের সরকারি অনুমতি পেয়ে গেল ফ্রান্সের ঐতিহ্যশালী শহরটি। অর্থাৎ প্রায় ১০০ বছর পর ফের একবার সেখানে অলিম্পিকের আসর বসবে। গতকাল বুধবার পেরুর রাজধানী লিমায় এই ঘোষণা করেছে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি। এছাড়া, ২০২৮ সালে লস অ্যাঞ্জেলসে বসবে পরবর্তী অলিম্পিকের আসর।

এর আগে ২০০৮ এবং ২০১২ সালে অলিম্পিক আয়োজনের জন্য বিড করেও অল্পের জন্য ব্যর্থ হয়েছিল প্যারিস। আর এবার আয়োজনের লড়াই ছিল লস অ্যাঞ্জেলসের সঙ্গে। কারণ হ্যামবুর্গ (জার্মানি), রোম (ইটালি), বুদাপেস্ট (হাঙ্গেরি) আগেই লড়াই থেকে সরে দাঁড়িয়েছিল।  

এদিকে, প্রাথমিকভাবে লস অ্যাঞ্জেলসও ২০২৪ সালের অলিম্পিক আয়োজন করতে চেয়েছিল। কিন্তু পরবর্তীকালে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক সংস্থার কাছ থেকে ২০২৮ অলিম্পিক আয়োজনের সম্মতি মেলায় সরে দাঁড়ায় তারা এবং আর এরপরই প্যারিসের নাম ঘোষণা করা হয়।

 ১৯২৪ সালে শেষবার ‘দ্য গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’-এর আসর বসেছিল সেখানে। পাশাপাশি ২০২৪ সালের পর শহরের বেশিরভাগ অংশে কাজ চলবে। তাই ২০২০ সালে টোকিও-র পর অলিম্পিকের আয়োজনের দায়িত্ব পাওয়ার জন্য মরিয়া ছিল প্যারিস।

জানা গিয়েছে, বুধবারের ঘোষণার আগেই আইফেল টাওয়ারের সামনে বসানো হয়ে গিয়েছে অলিম্পিকের লোগো। ঠিক হয়েছে ট্রায়াথলন, ম্যারাথন এবং ওপেন ওয়াটার সাঁতার হবে আইফেল টাওয়ার নিকটস্থ স্থানেই। এছাড়া বিচ ভলিবল খেলা হবে চ্যাম্পস দে মার্স-এ। শুধু তাই নয়, সাইক্লিং প্রতিযোগিতা শেষ হবে চ্যাম্পস-এলিসিসে। এখানেই বিখ্যাত সাইক্লিং প্রতিযোগিতা ‘ট্যুর দে ফ্রান্স’-এর অন্তিম পর্ব অনুষ্ঠিত হয়।  

এর পাশাপাশি অ্যাথেলিটক্সের জন্য বাছা হয়েছে স্টাডে ডে ফ্রান্স স্টেডিয়ামটিকে। যেখানে অনুষ্ঠিত হয়েছিল ১৯৯৮ বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনাল এবং ২০১৬ সালের ইউরো কাপের ফাইনাল। এদিকে, ১৯৩২ এবং ১৯৮৪ সালে অলিম্পিকের আসর বসেছিল আমেরিকার লস অ্যাঞ্জলসে। তাই তাঁদের আয়োজকরা ২০২৮ সালে অলিম্পিক সফলভাবে আয়োজনের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী। কারণ বেশিরভাগ ক্ষেত্রে কাজ মোটামুটি পুরো করা রয়েছে তাঁদের।

বিস্তারিত

বিচিত্র খবর

Ma

স্তন্যদুগ্ধ পান করানো নিয়ে এক এক মায়ের এক এক ধরনের মতামত রয়েছে। প্রত্যেক সন্তানের কাছেই মাতৃদুগ্ধ নিয়ে বিশেষ সংবেদনশীলতা রয়েছে। ভারতের চেন্নাইয়ে প্রীতি বিজয় নামে এক শিল্পী মায়ের দুধ নিয়ে সেই ভাবাবেগকে একটি নতুন রূপ দিতে শুরু করেছেন। স্তন্যদানের অভিজ্ঞতাকে অমর করে রাখতে অনেক মায়ের যে উৎসাহ রয়েছে, তাকে আকার দিচ্ছেন তিনি।

৩০ বছর বয়সি এই শিল্পী মায়ের দুধ দিয়ে কানের দুল, আংটি, লকেটের মতো গয়না তৈরি করছেন। এমনকী, ঘরে সাজিয়ে রাখার মতো জিনিসও বানাচ্ছেন তিনি মাতৃদুগ্ধ দিয়ে।

প্রীতি নিজেও ছয় বছরের এক সন্তানের মা। একটি ফেসবুক ফোরামে স্তন্যদুগ্ধ নিয়ে গয়নার ব্যাপারে কথাবার্তা চলতে চলতে প্রীতির মাথায় স্তন্যদুগ্ধ দিয়ে গয়না বানানোর ভাবনা আসে। প্রীতি দক্ষিণ ভারতের একটি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, আমি আগে পলিমার ও মাটির গয়না বানাতাম। মনে হল নতুন এই পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করলে কেমন হয়।

ইন্টারনেট থেকেই এই ধরনের গয়না বানানোর প্রশিক্ষণ নেন প্রীতি।

তবে সে পথ কঠিন ছিল। প্রায় ছ’মাস ধরে মায়ের দুধের গয়না তৈরির চেষ্টা করে অবশেষে সফল হন তিনি। এই বছরের মে মাস থেকে অর্ডার নেওয়া শুরু করেন তিনি। ক্রেতারা প্রীতিকে ফেসবুক পেজের মাধ্যমে যোগাযোগ করেন। কীভাবে বুকের দুধ পাঠাতে হবে, তা বলে দেন তিনি। ঠিক অবস্থায় রাখলে মানুষের দুধ তাড়াতাড়ি খারাপ হয় না বলেই প্রীতির দাবি।

 

যদিও অনেক দিন হয়ে গেলে তা শিশুকে খাওয়ানো যায় না, কিন্তু সেই দুধ থেকে গয়না বানানোতে কোনও অসুবিধা হয় না। প্রীতির কাছে পৌঁছালে সেই দুধে প্রিজারভেটিভ মিশিয়ে ফ্রিজারে রেখে দেন তিনি। ওই অবস্থায় দুধ প্রায় ছ’মাস রেখে দেওয়া যায় বলে জানিয়েছেন তিনি।  

ধীরে ধীরে মাতৃদুগ্ধের গয়নার চাহিদা বাড়ছে। সপ্তাহে প্রায় ১২টি অর্ডার পেলেও, এই শিল্পী চার থেকে পাঁচটি গয়না বানাতে পারেন। ডিজাইন ও কী ধরনের ধাতু ব্যবহার করা হচ্ছে, তার উপর গয়নাটির দাম নির্ভর করে। ১০০০ থেকে ৪০০০ টাকার মতো দাম এই গয়নার।

শুধুই মাতৃদুগ্ধ নয়, প্রীতি মাঝে মাঝেই সন্তানের প্রথম দাঁত বা চুল, এমন কী জন্ম নাড়ি দিয়েও গয়না বা ঘর সাজানোর জিনিসের অর্ডার পান। প্রীতির কথায়, আসলে স্তন্যদান একটি অপূর্ব অভিজ্ঞতা এবং এটি মা ও সন্তানের মধ্যে একটি অদ্ভুত বন্ধন তৈরি করে। অনেকে স্মৃতিচিহ্ন হিসেবে রেখে দেওয়ার জন্যই এই গয়না তৈরি করান।

তবে প্রীতি দুঃখ তিনি নিজের স্মৃতির জন্য কিছুই বানাতে পারেননি। কারণ তিনি এই গয়না বানানোর কায়দা আয়ত্ত করেন তাঁর সন্তান বড় হয়ে যাওয়ার পরে।  

বিস্তারিত

ছবিঘর

medialinks MAMS image
image



© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
উত্তরা নিউজ ২০১৩-২০১৭